বেসরকারিকরণ হতে চলেছে আরও দুটি সরকারি ব্যাঙ্ক!

২০২১-২২ অর্থবর্ষে অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ জানিয়েছিলেন, আইডিবিআই ব্যাঙ্ক ছাড়াও আগামী অর্থবর্ষে আরও সরকারি ব্যাঙ্ক বেসরকারীকরণ করা হবে। চলতি অর্থবর্ষে সরকার বিলগ্নিকরণের মাধ্যমে ১.৭৫ লক্ষ কোটি টাকা জোগাড় করার লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারন করেছে।

প্রসঙ্গত বলা প্রয়োজন যে, আইডিবিআই ছাড়া আর কোন কোন ব্যাঙ্ক বেসরকারীকরণ করা হবে তার নাম উল্লেখ করা নেই। তিনটি ব্যাঙ্কের মধ্যে একটি আইডিবিআই, এবং বাকি দুটোর বিষয়ে জল্পনা চলছে।

প্রযোজনা ছেড়ে মেয়েদের আবদারে পর্দায় নামতে চলেছে শ্রীদেবীর স্বামী বনি কাপুর

কেন্দ্রের মোদি সরকার অনেক আগেই জানিয়েছিল যে, কমতে পারে সরকারী ব্যাঙ্কের সংখ্যা। ইতিমধ্যেই ১০টি সরকারি ব্যাঙ্ক সংযুক্তিকরণের মাধ্যমে ৪টি ব্যাঙ্ক গঠন করা হয়েছে।তবে এখনও আরও সরকারী ব্যাঙ্কের বেসরকারিকরণ বাকি রয়েছে। বিশেষজ্ঞদের মতে, যে সব ব্যাঙ্কগুলিতে ধারাবাহিক ভাবে ঘাটতিতে চলছে, সেগুলিকেই বেসরকারিকরণ করা হবে।

নীতি আয়োগ ২০২০ সালে কেন্দ্রীয় সরকারকে তিনটি সরকারি ব্যাঙ্ককে বেসরকারিকরণের প্রস্তাব দেয়। এই তালিকায় ছিল ইউকো ব্যাঙ্ক, পঞ্জাব অ্যান্ড সিন্ধ ব্যাঙ্ক আর ব্যাঙ্ক অফ মহারাষ্ট্রের নাম। গত বছর সংবাদমাধ্যম রয়টার্সের একটি প্রতিবেদনেও এই তিনটি ব্যাঙ্কের বেসরকারিকরণের সরকারি সিদ্ধান্তের কথা প্রকাশিত হয়।

প্রথম শ্রেণীর একটি সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুসারে, ইউকো, পঞ্জাব অ্যান্ড সিন্ধ, ব্যাঙ্ক অফ মহারাষ্ট, সেন্ট্রাল ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া, ইন্ডিয়ান ওভারসিস ও ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া এই তালিকার মধ্যে থেকেই যে কোনও দুটি ব্যাঙ্কের বেসরকারিকরণ হতে পারে বলে জল্পনা চলছে।

শেয়ার করে ভারতীয় হওয়ার গর্ব করুন

আপনার মতামত জানান