রহস্যজনক, একই দড়িতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মঘাতী দুই ছাত্রী

0
47
ফাইল ছবি

রহস্যজনক, একই দড়িতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মঘাতী দুই ছাত্রী

নদিয়া: একই দড়িতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করল দুই ছাত্রী। ঘটনাটিকে কেন্দ্র করে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়। স্থানীয় সূত্রে খবর, একটি দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করে দুই বান্ধবী। ঘটনাটি ঘটেছে নদিয়ার হাঁসখালি থানার কানাইপল্লী এলাকায়।

মৃতদের নাম রিয়া বিশ্বাস ও পপিতা বিশ্বাস। রিয়া বগুলা শ্রীকৃষ্ণ কলেজের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী এবং পপিতা বিশ্বাস ভৈরবপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্রী। তাদের দুইজনের বাবা কর্মসূত্রে বাইরে থাকেন।

তারা দুজনে খুব ভালো বন্ধু ছিল এবং বেশির ভাগ সময় তারা একসঙ্গে কাটাতো বলে সূত্রের খবর। তবে, ঠিক কি কারণে আত্মহত্যা করল তাঁরা ২ জন, তা এখনও স্পষ্ট নয়।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, পপিতার সঙ্গে প্রতিবেশী গ্রামের এক যুবকের সম্পর্ক ছিল। সেই সম্পর্কে কোনও আপত্তি ছিল না পরিবারের। মঙ্গলবার রাতে পপিতার বাড়িতে প্রজেক্টের কাজ করবে বলে গিয়েছিল রিয়া।

রিয়া ও পপিতা একসঙ্গে মধ্য রাত পর্যন্ত পড়াশোনা করে। বুধবার সকালে পরিবারের লোকজন ঘুম থেকে উঠে দেখতে পান ওই ঘরের মধ্যে একটি দড়িতেই ঝুলন্ত অবস্থায় রয়েছে দুজনের দেহ। ঘরে একটি সুইসাইড নোটও পাওয়া যায়।

হাঁসখালী থানায় খবর দেওয়া হলে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। দুজনের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করে শক্তিনগর জেলা হাসপাতালে ময়নাতদন্ত জন্য পাঠায় পুলিশ। এই আত্মহত্যার পিছনে কী কারণ, তা জানতে তদন্ত শুরু করেছে হাঁসখালি থানা পুলিশ।

তবে, একটি সুইসাইড নোটে মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ী নয় বলেই লিখে গেছে আত্মঘাতী ওই দুই ছাত্রী।

শেয়ার করে ভারতীয় হওয়ার গর্ব করুন

আপনার মতামত জানান