৮ বছর ধরে চললো খুনের মামলা, অবশেষে ‘নির্দোষ’ কে দোষী সাব্যস্ত করলো শিলিগুড়ি আদালত

Loading

Homicide 

লড়াই ২৪ ডেস্ক: শিলিগুড়ি আদালত ৮ বছর খুনের মামলা চলার পর নির্দোষকে দোষী সাব্যস্ত করল । খুশি সব মহলই। কিন্তু কেন ? কি হয়েছিল ঘটনা ?।নির্দোষকে দোষী সাব্যস্ত করেছে আদালত।

https://news.google.com/publications/CAAqBwgKMJ-knQswsK61Aw?hl=en-IN&gl=IN&ceid=IN:en

৮ বছর ধরে মামলা চলেছে । মেয়েকে মারধরের হাত থেকে বাঁচাতে গিয়েই স্ত্রী খুনের দায়ে দোষী সাব্যস্ত হন নির্দোষ।

আরও পড়ুন…………………শহর কলকাতায় উদ্ধার হল ৪২০০ কোটি টাকার তেজস্ক্রিয় পদার্থ, গ্রেফতার দুই

আসলে তার নাম নির্দোষ টোপ্পো। নাম নির্দোষ হলেও স্ত্রীকে খুনের দায়ে অভিযুক্ত নির্দোষ টোপ্পোকে দোষী সাব্যস্ত করল আদালত। প্রায় দীর্ঘ ৮ বছর পর স্ত্রীকে খুনের মামলায় স্বামীকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের সাজা ঘোষণা করল শিলিগুড়ি জেলা আদালত। শুধু তাই নয় যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের পাশাপাশি এক লক্ষ টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে এক বছরের জেলের সাজা দেওয়া হয় নির্দোষ টোপ্পোকে।

এই রাজ্যে মদ্যপ স্বামীর অত্যাচারের ঘটনা নতুন কিছু নয়। একই ভাবে আজ থেকে প্রায় ৮ বছর আগে ২০১৩ সালে হাঁসখোয়া চা বাগান এলাকার বাসিন্দা নির্দোষ টোপ্পো বাড়িতে ঢুকে দেখেন বিছানা এলোমেলো রয়েছে। এই দেখে নির্দোষ ক্ষুব্ধ হয়ে মেয়ের উপর চড়াও হয়। তার স্ত্রী বাঁধা দিতে গেলে মদ্যপ স্বামীর হাতে প্রাণ হারাতে হয় স্ত্রী ঊষা দেবীর।

নির্দোষ টোপ্পোর ভাই জ্যোতিষ টোপ্পো এরপরই  শিলিগুড়ির বাগডোগরা থানায় দাদার বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছিল। এরপর ঘটনায় অভিযুক্ত নির্দোষ টোপ্পোকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ ।

Homicide 

Author

Share Please

Make your comment